ইসলামী জীবনযাপনের ঘোষণা দিলেন ভারতীয় শোবিজ তারকা

মুসলিম উম্মাহর সবচেয়ে বড় ও প্রধান কাজ হলো ইসলামের আকিদা বিশ্বাসের ওপর অটল এবং অবিচল থাকা।মাহজাবিন সিদ্দিকী ভারতীয় রিয়েলিটি শো ‘বিগ বস, সিজন-১১-এর প্রতিযোগী ছিলেন। সাবেক বলিউড অভিনেত্রী সানা খানের বর্তমান ইসলামী জীবনযাপনে প্রভাবিত হয়ে তিনিও একই পথ অনুসরণের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। মঙ্গলবার একাধিক গণমাধ্যম এ খবর নিশ্চিত করেছে।

মাহজাবিন সিদ্দিকী নিজের জীবনের মোড় পরিবর্তন নিয়ে ইনস্টাগ্রামে দীর্ঘ এক পোস্ট দিয়েছেন। তাতে তিনি লিখেছেন, ‘আমি এটি এজন্য লিখছি যে, আমি গত দুই বছর যাবত অনেক হতাশাগ্রস্ত ছিলাম। আমি কিছুই বুঝতেছিলাম না যে, আমার কী করা উচিৎ, যাতে আমার প্রাশান্তি মেলে।’

তিনি আরো লিখেন, ‘মানুষ যখন গোনাহ করে, তখন তার ওই গোনাহের স্বাদ কিছুক্ষণ পরেই তো শেষ হয়ে যায় কিন্তু ওই গোনাহ থেকে যাবে কেয়ামত পর্যন্ত। আমি অনুভব করলাম যে, আমি আসল জীবন ভুলে গিয়ে দুনিয়ার লোকদেখানো জীবনযাপন করছি।’

মাহজাবিন লিখেন, ‘আল্লাহর নাফরমানি করে মানুষের কখনো সুখ লাভ হয় না। আপনি মানুষকে খুশি করার জন্য যত ভালো কাজই করুন এবং তাদেরকে যত সময়ই দেন, তারা কখনোই আপনার সঠিক মূল্যায়ন করবে না। তাই এরচেয়ে ভালো হলো- আপনি আপনার সময় আল্লাহকে খুশি করার জন্য ব্যয় করুন, যাতে আমার-আপনার আখেরাত সুন্দর হয়।’

পোস্টের শেষ দিকে তার ভাষ্য, আমি গত এক বছর ধরে সানা খানকে অনুসরণ করে আসছি। তার কথাবার্তা আমাকে মুগ্ধ করেছে। তাকে দেখে আমার ভেতরটা উপদেশ গ্রহণের প্রতি আগ্রহী হয়।’

এরপরই তিনি শোবিজ ছাড়ার ঘোষণা দেন। অনুভূতি জানিয়ে লিখেন, আল্লাহর কাছে তওবা করার পর আমার যে প্রশান্তি লাভ হয়েছে তা আমি মুখে বর্ণনা করতে পারব না। যে প্রশান্তি আমি খুঁজছিলাম তা নামাজ আদায়ের মধ্যে পেয়েছি। একইসাথে আমি এ সিদ্ধান্তও নিয়েছি যে, এখন থেকে নিয়মিত হিজাব পরিধান করব।’

সূত্র : ডেইলি জং ও এক্সপ্রেজ নিউজ

Back to top button