‘প্রাইমারী থেকে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যন্ত ইসলাম শিক্ষা বাধ্যতামূলক করতে হবে’

আজ সকালে বাংলাদেশের আমির ও পীর সাহেব জৈনপুরী মুফতি ড. মুহাম্মদ এনায়েতুল্লাহ আব্বাসী বলেছেন, মুসলিম জাতীসত্ত্বা বাংলাদেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বের মূলশক্তি। তাই বাংলাদেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বকে অক্ষুন্ন রাখতে এবং দূর্নীতিমুক্ত দেশ গড়তে হলে প্রাইমারী থেকে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যন্ত ইসলাম শিক্ষা বাধ্যতামুলক করতে হবে।

আজ মঙ্গলবার সকাল ১০ টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবে আঃ ছালাম হলে “বোর্ড পরীক্ষায় ধর্মশিক্ষা বহাল এবং প্রত্যাখাত বিবর্তনবাদ মুক্ত সিলেবাস আবশ্যক” জাতীয় সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় পীর সাহেব বলেন, ইসলাম মহানবী (সাঃ) এর আদর্শ রাষ্ট্র স্বীকৃত উৎস থেকে না শিখতে পারলে আমাদের সন্তানরা সহজেই মিস গাইডেড হয়ে ভুল উৎস থেকে অপব্যাখ্যা শিখে চরমপন্থার সাথে জড়িয়ে যাওয়ার আশংকা রয়েছে। ইসলাম শিক্ষা না থাকলে নৈতিকতার মানদন্ডে উত্তীর্ণ মানুষ হওয়া সম্ভব নয়।

তিনি আরও বলেন, জাতীয় শিক্ষানীতি অনুযায়ী “নৈতিকতার মূল উৎস হচ্ছে ধর্ম”। সেই ধর্মকে পাবলিক পরীক্ষা থেকে মুক্ত রেখে কিছুতেই জাতীয় শিক্ষানীতিকে বাস্তবায়ন ও আদর্শিক নাগরিক পাওয়া সম্ভব নয়।

এ সময় তিনি বলেন, চালর্স ডারউইনের বিবর্তনবাদ অপ্রমাণিত, অবৈজ্ঞানিক বিতর্কিত একটি আষাড়ে গল্প সদৃশ কুফরী মতবাদ। বিবর্তনবাদকে বিশ্বাস করলে একজন মুমিন ঈমানদার থাকতে পারে না। তাই অনতিবিলম্বে এই তত্ত্ব পাঠ্য পুস্তক থেকে অপসারণ করতে হবে।

Back to top button