দেশের মানুষ এখন আমাদের নিয়ে হাসাহাসি করে: রুবেল

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন নিয়ে জল কম ঘোলা হয়নি। এখনও এই নির্বাচন ঘিরে চলছে আলোচনা-সমালোচনা। একে অন্যের বিরুদ্ধে অভিযোগ, পাল্টা অভিযোগ করছেন। এমন পরিস্থিতিতে এফডিসিতে আর না যাওয়ার চেষ্টা করবেন বলে জানিয়েছেন চিত্রনায়ক রুবেল।

শিল্পী সমিতির নির্বাচনের ফল ঘিরে কাদা ছোড়াছুড়ি শিল্পীদের বিব্রত করেছে বলে দাবি রুবেলের। এসব কিছু মিলিয়ে এফডিসি এখন মৃত বলে মনে করেন তিনি। দেশের প্রথম সারির জাতীয় দৈনিককে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন এই অ্যাকশন হিরো।

রুবেল বলেন, আমি চলচ্চিত্র সমিতির উন্নয়ন চাই। সংগঠন এগিয়ে যাক এমনটাই চাই আমি। আমি তাদের সবার স্বার্থে সব সময় আছি। এটাই আমার জন্য সত্য। কিন্তু এখন কাদা ছোড়াছুড়ি হচ্ছে। এসব শিল্পীদের বিব্রতকর পরিস্থিতিতে ফেলেছে। এই অবস্থায় চেষ্টা করবো আর এফডিসিতে পা না রাখার।

তিনি বলেন, এর আগেও নির্বাচন করেছি। আমার বেশ কয়েকটি নির্বাচন করার অভিজ্ঞতা রয়েছে। তবে সেসব নির্বাচনের তুলনায় এবারের নির্বাচনের মত এত নোংরামি কোনো দিন দেখেনি। আমি কোনো দিন নোংরা রাজনীতির মধ্যে যাইনি। জীবনে কারো সাথে বেয়াদবি, খারাপ আচরণ করেনি।

এই অ্যাকশন হিরো বলেন, আমি যখন ক্রীড়া ও সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক ছিলাম, তখন ওই পোস্টে আমি নির্বাচন না করলে কেউ করতো না। আমি সমিতির সাবেক সভাপতি হিসেবে আহমেদ শরীফ ভাইয়ের সঙ্গে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে কাজ করেছি। মান্না সাহেবসহ অনেকের সঙ্গে সমিতিতে কাজ করেছি। এবারও সবই ঠিক ছিল কিন্তু কোথায় যেন নোংরামি চরম আকার ধারণ করেছে। সারা দেশের মানুষ এখন আমাদের নিয়ে হাসাহাসি করে। আমি হাসাহাসির পাত্র হতে চাই না।

তিনি আরও বলেন, নির্বাচনের পর সবাই আমরা সমান কিন্তু এই সমান শব্দটা কেন যেন আমরা এখন আর মেনে নিতে পারছি না। যে কারণে এখন অনেকের কথাবার্তার মধ্যে উত্তেজিত ভাব লক্ষ্য করা যায়। এখন আর কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে চলার মনোভাব অনেকের মধ্যেই নেই। এটা শিল্পীদের থাকার দরকার।

Back to top button